uttaranews24 uttaranews24
সবার আগে সবসময়


সঠিক সংবাদ পরিবেশনের মাধ্যমে দেশের উন্নয়নে অংশীদার হতে হবে: মুহ. শহিদুল ইসলাম






উত্তরা নিউজ টোয়েন্টিফর ডটকম । মালয়েশিয়া থেকে তামজিদ হোসেন (রুবেল): জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। বিশ্বের বুকে মাথা উঁচু করে বলতে পারি আমি বাংলাদেশি। আর তারই ধারাবাহিকতায় বিশ্বে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা বাংলাদেশীদের অবদান অব্যাহত রাখতে মালয়েশিয়ায় প্রত্যেকটি শহরের কমিউনিটি সংগঠন গঠিত করতে হবে। যেকোনো সমস্যা সমাধানে তাহলে বড় ভূমিকা রাখবে। মালয়েশিয়া অনেক বড় দেশ তাই সব শ্রমিকের কাছে যাওয়া খুবই কঠিন এবং আমরা চাইলেও তাদের সব খবরা-খবর রাখতে পারি না। এজন্য মালয়েশিয়া অবস্থিত বাংলাদেশী শ্রমিকদের  জন্য সেবার মান আরও বাড়িয়ে দেওয়ার জন্য প্রত্যেক  অঞ্চল জুড়ে বাংলাদেশিদের নিয়ে কমিটি সংগঠন বাড়ালে প্রত্যেক প্রবাসী তাদের কাঙ্ক্ষিত সেবা পাবে। সকল কূটনৈতিক প্রচেষ্টায় মালয়েশিয়া এবং বাংলাদেশের মধ্যে সম্পর্ক বিরাজ করছে। বর্তমান বাংলাদেশ ও মালয়েশিয়ার বাণিজ্য বেড়ে দাঁড়িয়েছে দুইশত ৬০ মিলিয়ন ডলারের উপরে। যে কোন ব্যবসা বাণিজ্য করতে আমাদের কাছে আসুন আমরা সর্বোচ্চ সহযোগিতা করব বাংলাদেশ হাই কমিশনের পক্ষ থেকে। প্রবাসে বাংলাদেশীদের খবরা খবরসহ অত্যন্ত সহনশীলতার সঙ্গে লেখালেখি করতে হবে। কিছু লেখালেখি আমাদের বিভ্রান্ত করে এবং মালয়েশিয়ার সরকারের কাছে জবাবদিহি করতে হয়। যে কোন সংবাদ প্রকাশ করার আগে তার সত্যতা যাচাই করে সঠিক সংবাদ প্রকাশ করার আহ্বান জানিয়েছেন । সম্প্রতি এক আলোচনা অনুষ্ঠানে কথাগুলো বলছিলেন মালয়েশিয়ায় নিযুক্ত বাংলাদেশ হাইকমিশনার মুহা. শহিদুল ইসলাম। তিনি বলেন, প্রবাসে যারা বিভিন্নভাবে প্রতিষ্ঠিত তাদেরকে সহযোগিতায় এগিয়ে আসতে হবে। যৌথ উদ্যোগে  অনেক সমস্যা সমাধান করা সম্ভব। এভাবেই মালয়েশিয়ার সাথে বাংলাদেশের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ককে আরো দৃঢ় করা যাবে।

মালয়েশিয়ায় নিযুক্ত বাংলাদেশ হাইকমিশনার মুহা. শহিদুল ইসলাম আরও বনে, বন্ধুত্বের নির্দেশনা স্বরূপ  মালয়েশিয়া সরকার গত আড়াই বছর ধরে বৈধতার সুযোগ দিয়েছে । এ বৈধকরণ প্রকল্পে প্রায় ৬ লাখ অভিবাসী নিবন্ধন করেছিল, এদের মধ্যে প্রায় ৪ লাখ ৫০ হাজার বৈধতা পেয়েছে। বাকি যারা আছেন তারা কোম্পানির বিভিন্ন সমস্যার কারণে বৈধ হতে পারেনি। আমরা মালয়েশিয়ার সরকারকে অনুরোধ করেছি তাদেরকেও বৈধ করে নেয়ার জন্য। ফলে তাদের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন আছে।
এসময় হাইকমিশনার মালয়েশিয়ায় অবস্থানরত বাংলাদেশী গণমাধ্যমকর্মীদের জানান, ’প্রবাসের সংবাদ প্রকাশনার ক্ষেত্রে সাংবাদিকদের উভয় দেশের বিভিন্ন বিষয় বিবেচনায় করতে হবে। তিনি বলেন, ভুল বার্তা দিয়ে বা  মিথ্যে প্রচার করে এমন বার্তা বাংলাদেশে অবস্থিত প্রত্যেকটা পরিবার দুশ্চিন্তায় ফেলে। মালয়েশিয়া সম্পর্কে ভুল তথ্য দিয়ে সংবাদ প্রচার করে দুই দেশের সম্পর্কে নেতিবাচক প্রভাব ফেলে উল্লেখ করে মহ. শহীদুল ইসলাম বলেন, বাংলাদেশ ও মালয়েশিয়ার মধ্যে যে চমৎকার দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক  রয়েছে তার ধারাবাহিকতা রক্ষার্থে সকলে একসাথে কাজ করে যেতে হবে। বিদেশী কর্মী নিয়োগে সোর্স কান্ট্রির তালিকা থেকে বাংলাদেশ বাদ পড়েনি একথা বলেও জানান তিনি।