শৈলকুপায় ওষুধ ব্যবসায়ীর আত্মহত্যা!


» কামরুল হাসান রনি | ডেস্ক ইনচার্জ | | সর্বশেষ আপডেট: ০৩ এপ্রিল ২০২০ - ০৭:২২:১৫ অপরাহ্ন

জাহিদুর রহমান তারিক, ঝিনাইদহঃ সুদখোরদের অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে ইতাহার আলী (৩৫) নামে এক ওষুধ ব্যবসায়ী বিষপানে আত্মহত্যা করেছে। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার দুপুরে ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলার দহকুলা গ্রামে।

গাড়াগঞ্জ বাজারের মিয়া ফার্মেসির মালিক ইতাহার আলী দহকুলা গ্রামের জহুরুল হক পায়রা মিয়ার ছেলে। পারিবারিক সুত্রে বলা হয়েছে, এসএমসির ডিলারশীপ নেওয়ার জন্য এক ব্যক্তির কাছে ২৫ লাখ টাকা দেয় ইতাহার। এই টাকা তিনি এলাকার বিভিন্ন সুদখোরদের কাছ থেকে নেয়। এদিকে ডিলারশীপ না দিয়ে বিভিন্ন ব্যক্তির কাছ থেকে প্রায় কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়ে পালিয়ে যায় এসএমসিতে চাকরীরত ওই ব্যক্তি। হতাশ হয়ে পড়ে ইতাহার।

এদিকে সুদ এবং আসল টাকার জন্য ইতাহার আলীর উপর চাপ দিতে থাকে এলাকার প্রভাবশালী সুদখোররা। এ নিয়ে এলাকায় বেশ কয়েকবার সালিশ বৈঠক হয়। ইতাহার আলী যে টাকা সুদখোরদের কাছ থেকে নিয়েছিল তার চেয়ে বেশি তার কাছ থেকে আদায় করে বলে অভিযোগ। তারপরও টাকা শোধ হচ্ছিল না। সুদের টাকার চাপে মানসিক ভাবে বিপর্যস্ত হয়ে পড়ে ইহাতার। বৃহস্পতিবার দুপুরে দুঃশ্চিন্তায় বিষ পান করে ইতাহার। তাকে দ্রুত ঝিনাইদহ সদর হাসপাতালে ভার্তি করা হলে মৃত্যুবরণ করেন।

ইতাহার আলীর চাচা ঝিনাইদহের বিশিষ্ট আইনজীবী সাদ্দাতুর হাদী জানান, তার ভাতিজা এলাকার বহু সুদখোরের কাছ থেকে টাকা নিয়েছিলেন। তাদের অত্যাচারে মুলত সে আত্মহত্যা করেছে।

এ ব্যাপারে শৈলকুপা থানার ওসি বজলুর রহমানের কাছে জানতে বৃহস্পতিবার তাকে ফোন করা হলে তিনি ফোন রসিভি করেন নি।