যুক্তরাষ্ট্রে একদিনে ৪৫ হাজার রোগী শনাক্ত, তবুও মাস্ক পরবেন না ট্রাম্প


» Masud Rana | | সর্বশেষ আপডেট: ৩০ জুন ২০২০ - ১২:০৪:৩৬ অপরাহ্ন

যুক্তরাষ্ট্রে করোনা সবশেষ একদিনে প্রায় ৪৫ হাজার মানুষের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এ অবস্থার মধ্যেই নিউ জার্সির বিপণিবিতান খুলে দেয়া হয়েছে। এদিকে মাস্ক না পরতে চাওয়ায় ট্রাম্পের বিপক্ষে তার দলেরই বেশ কয়েকজন নেতা।

নিউজার্সির এই রেস্তোরাঁর সামনে অপেক্ষারত ক্রেতাদের ভিড় দেখে বোঝা মুশকিল যুক্তরাষ্ট্রের করোনা সংক্রমণের হার কত বেশি। অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে অনেক ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, বিপণিবিতান, সেলুন চালু হলেও সাধারণ মানুষকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখেই আসতে বলা হয়েছে।

নিউ জার্সিতে বিপণিবিতান খুলে দেয়া হলেও ফ্লোরিডার সমুদ্র সৈকতগুলো বন্ধ করে দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রশাসন। কোভিড সংক্রমণের হার যখন কিছুটা কমেছিল তখন সৈকতগুলো সবার জন্য খুলে দেয়া হয়েছিল।

একজন বলেন, শিশুরা কোথাও যেতে পারে না। সমুদ্র সৈকতে তেমন একটা ভিড় নেই। তারপরও যেহেতু ক্রমাগত বেড়েই চলেছে সংক্রমণ, সেক্ষেত্রে আমি মনে করি এ সিদ্ধান্ত ঠিক আছে।

এদিকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প জনসমক্ষে মাস্ক পরায় অপারগতা জানানোর বিষয়টি নিয়ে আলোচনার ঝড় উঠেছে। তার এমন বক্তব্যের পর হোয়াইট হাউসের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে ট্রাম্প মনে করেন কে মাস্ক পরবে, না পরবে সেটা তার ব্যক্তিগত বিষয়। তবে রিপাবলিকান অনেক নেতাই বলেছেন মার্কিন স্বাস্থ্য কর্মকর্তাদের পরামর্শ অনুযায়ী সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা এবং মাস্ক পরা জরুরি। আর দেশজুড়ে সবাইকে মাস্ক ব্যবহার বাধ্যমূলক করতে ট্রাম্পকে নির্বাহী আদেশ জারির আহ্বান জানিয়েছেন নিউইয়র্ক গভর্নর এন্ড্রু কুমো।