মেডিকেলের সামনেই ভ্যানের উপর সন্তান প্রসব এ দায় কার?


» কামরুল হাসান রনি | ডেস্ক ইনচার্জ | | সর্বশেষ আপডেট: ১৪ মার্চ ২০২০ - ০৭:২৭:২৩ অপরাহ্ন

মোঃ আনোয়ার সাদাত পাটোয়ারী রিপন: লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হওয়ার পরও প্রসববেদনায় ছটফটরত এক মায়ের সন্তান জন্ম হলো মেডিকেলের সামনেই ভ্যানের উপর। সন্তান জন্মের সময় সহযোগিতা না করে উল্টো ক্লিনিকে নিয়ে সিজার করানোর জন্য চাপ প্রয়োগ করার অভিযোগ উঠেছে ডিউটিরত নার্সদের বিরুদ্ধে।
১২ মার্চ বৃহস্পতিবার রাত ১২টায় হাতীবান্ধা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সামনেই এ ঘটনাটি ঘটে। জানা গেছে, হাতীবান্ধা উপজেলার পুর্ব বিছনদই এলাকার দিনমজুর রুহুল আমিনের মেয়ে মনিফা বেগমের (২২) বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর থেকে প্রচন্ড প্রসব বেদনা শুরু হয়। পরে রাত ১০ টার সময় মনিফাকে ভ্যানযোগে হাতীবান্ধা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এনে ভর্তি করান তার ছোট ভাই রাকিব (১৫)। যার ভর্তি রেজি নং-৩৩৫৬/৫০ ও ওয়ার্ডে ভর্তি রেজি-১৪২৩।
কিন্তু মেডিকেলে ভর্তির পর থেকে গর্ভবতী মনিফাকে কোন নার্স বা আয়া সহযোগিতা না করে উল্টো তাকে ক্লিনিকে নিয়ে গিয়ে সিজার করার জন্য ডিউটিরত নার্সেরা চাপ দেন। কিন্তু সিজার করার সামর্থ না থাকায় মেডিকেলেই বাচ্চা প্রসব করার জন্য নার্সদের কাছে মনিফা কান্নাকাটি করেন কিন্তু তাতে মন গলেনি তাদের। তাই নিরুপায় হয়ে রাকিব তার বোনকে নিচে নামিয়ে ভ্যনের উপড় রেখে এদিক ওদি ছুটাছুটি করতে থাকেন। পরে রাত সাড়ে ১২টার সময় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সামনেই মনিফা একটি পুত্র সন্তান প্রসব করেন, বাচ্চাটি বর্তমানে সুস্থ আছে।
সরকারি মেডিকেলের নার্স ও ডাক্তারের এহেন কার্যকলাপ নিয়ে এলাকাজুড়ে তীব্র সমালোচনার ঝড় উঠেছে। তাই বিষয়টি খতিয়ে দেখে ঐ নার্সদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা উচিৎ বলে মনে করেন সুধীজনেরা।