মির্জাগঞ্জে জমি সংক্রান্ত বিরোধে ন্যাক্কারজনক হামলা; গুরুতর আহত ৫


» কামরুল হাসান রনি | ডেস্ক ইনচার্জ | | সর্বশেষ আপডেট: ০৯ এপ্রিল ২০২০ - ১০:২৮:০৩ পূর্বাহ্ন

হাফিজুর রহমান জিহাদ, মির্জাগঞ্জ প্রতিনিধিঃ পটুয়াখালী জেলার মির্জাগঞ্জ উপজেলার রামপুর গ্রামে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে সন্ত্রাসী হামলা চালিয়ে মোঃ মজিদ হাওলাদারের বাড়ি-ঘরে ব্যাপক ভাংচুর ও লুটপাট করছে বিরোধীপক্ষ। এতে তার ছেলে মোঃ সিফাত হাওলাদার ও স্ত্রী হাসিনা বেগমসহ ৫ জনকে কুপিয়ে আহত করা হয়েছে।
মঙ্গলবার (৭ এপ্রিল) রাত ১০ঃ৩০ মিনিটে উপজেলার ১ নং মাধবখালী ইউনিয়নের রামপুর গ্রামে এই ন্যাক্কারজনক হামলার ঘটনা ঘটে।
পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মজিদ হাওলাদারের চাচাতো ভাই সাখাওয়াত আলীর নেতৃত্বে তার ছেলে ইমরান ও মনিরসহ ২০-২৫ জনের একদল সন্ত্রাসী জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে মজিদ হাওলাদারের বসতঘরে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে লাঠি, লোহার রড, রামদা ও দা নিয়ে আক্রমণ চালায়। সন্ত্রাসীরা মজিদ হাওলাদারের বসত ঘর ও ঘরের ভিতরে রক্ষিত আসবাবপত্র ভাংচুর করে। এ সময় তার ছেলে ও স্ত্রীকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে আহত করে এবং শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যার চেষ্টা চালানো হয়। পরে ঘরের ভিতরে থাকা ৫ ভরি স্বর্ণ ও ৮ লক্ষ টাকা লুটপাট করে নিয়ে যায়। ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের শোরগোল-চিৎকারে এলাকাবাসী এসে আহতদের চিকিৎসার জন্যে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে অবস্থা গুরুতর হওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য তাদের বরিশাল শেবাচিমে হাসপাতালে প্রেরণ করে।
এ ব্যাপারে মির্জাগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ এম আর শওকত আনোয়ার ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,  চাচা- ভাতিজার মধ্যে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের উপর হামলার ঘটনা ঘটে। হামলাকারীদের গ্রেপ্তারে মির্জাগঞ্জ থানা পুলিশ ও কাঠালতলী পুলিশ ফাঁড়ির যৌথ অভিযান চলছে। খুব দ্রুত গ্রেফতার করে তাদের আইনের আওতায় আনা হবে।