উত্তরা নিউজ উত্তরা নিউজ
অনলাইন রিপোর্ট


বঙ্গবন্ধুর আওয়ামী লীগে হাইব্রীডদের আশ্রয় হবেনা: আমু






বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটি উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য ও সাবেক শিল্প মন্ত্রী আমির হোসেন আমু বলেছেন-বঙ্গবন্ধুর আওয়ামী লীগে হাইব্রীডদের আশ্রয় হবেনা। জাতির পিতা চেয়েছিলো একটি সুখি সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়তে। আর তারই লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ দেশ পরিচালনা করে অর্থনৈতিক মুক্তি এনে দিয়েছে। সেই সাথে বাংলাদেশ এখন মধ্যম আয়ের দেশের সাথে বিশ্বের কাছে হয়েছে উন্নয়নশীল রোল মডেল।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ন জয়ন্তী পালন, কর্মী সংগ্রহসহ তৃণমূলে ঝিমিয়ে পরা আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের উজ্জীবিত করার তিনটি লক্ষ্যকে সামনে রেখে আওয়ামী লীগের বরিশাল বিভাগীয় প্রতিনিধি সভা বৃহস্পতিবার বেলা ১১ টায় বরিশাল ক্লাব মিলনায়তনের হল রুমে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

প্রতিনিধি সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে আমির হোসেন আমু বলেন-প্রতিনিধি সভার মাধ্যমে সকল ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করে বরিশাল বিভাগের আওয়ামী লীগকে আরও শক্তিশালী করা হবে। তিনি আরও বলেন, ওরা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ১৯বার হত্যার চেষ্টা করেছিল। সেদিন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ জাতীয় চার নেতা ও দক্ষিণ বাংলার কৃষক কুলের নয়ন মনি আবদুর রব সেরনিয়াবাত ও তার পরিবারকে হত্যার মাধ্যমে স্বাধীনতার চেতনাকে হত্যা করা হয়েছিল।

বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করার সাথে সাথে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের ২১বছর নির্যাতনের শিকার হতে হয়েছিল। এমনকি আমাদেরকে বঙ্গবন্ধুর শাহাদাত বাষির্কী পর্যন্ত পালন করতে দেয়া হয়নি। আজ আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শুধু বাংলাদেশের নেতা-ই না, এখন সে আন্তর্জাতিকখ্যাতি সম্পন্ন নেতা হওয়ার গৌরব অর্জণ করতে সক্ষম হয়েছেন। সেই সাথে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশকে অর্থনৈতিক মুক্তি আনার জন্য আন্তর্জাতিকভাবে ৩৭টি পুরস্কার পেয়ে বাংলাদেশের সুনাম বৃদ্ধি করেছেন। তাই শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর অদর্শ বাস্তবায়নের লক্ষ্যে বাংলাদেশকে নেতৃত্বে দিয়ে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। তারই ধারাবাহিকতায় সকল মানুষের দাবির মুখে স্বাধীনতার স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের খুনীসহ যুদ্ধাপরাধীদের বিচার করা সম্ভব হয়েছিল।

বরিশাল জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি পার্বত্য শান্তি চুক্তি বাস্তবায়ন নিরিক্ষা কমিটির আহ্বায়ক (মন্ত্রী) আলহাজ¦ আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ এমপি’র সভাপতিত্বে এবং আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আ.ফ.ম বাহউদ্দিন নাসিমের সঞ্চালনায় প্রতিনিধি সভায় প্রধান বক্তা ছিলেন-সাবেক মন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য তোফায়েল আহমেদ এমপি।

বিশেষ অতিথি ছিলেন উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট ইউসুফ হোসেন হুমাউন, হাফিজ মল্লিক, যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক প্রতিমন্ত্রী জাহাঙ্গীর কবির নানক, আবদুর রহমান এমপি, আইন বিষয়ক সম্পাদক ও গণপূর্ত মন্ত্রী অ্যাডভোকেট শ.ম. রেজাউল করিম এমপি, পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী কর্নেল (অবঃ) জাহিদ ফারুক শামিম এমপি, তথ্য ও গবেষনা সম্পাদক অ্যাডভোকেট আফজাল হোসেন, আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ড. শাম্মী আহমেদ, কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য গোলাম রাব্বানী চিনু ও বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহ।
বিভাগীয় প্রতিনিধি সভায় আওয়ামী লীগের বিভাগের দলীয় সকল সংসদ সদস্য, জেলা ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, পৌর মেয়র, জেলা ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকরা অংশগ্রহণ করেন।

সভায় যোগ দেয়া প্রতিনিধিরা বলেন-এ সভার মধ্যদিয়ে তৃণমূল পর্যায়ে বেশ ইতিবচক প্রভাব ফেলবে। যা দলের সাংগঠনিক কার্যক্রমে বেশ সহায়ক হবে। এ ছাড়া স্থানীয় রাজনীতে ভুলত্রুটি এবং সামনে করনীয় বিষয়গুলো নিয়ে আলোচনার সুযোগ থাকায় আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের সামনের পথ চলার অনেক গুরুত্ব বহন করবে।

উত্তরা নিউজ/এস,এম,জেড