মুহাম্মদ গাজী তারেক রহমান মুহাম্মদ গাজী তারেক রহমান
উত্তরা নিউজ, স্টাফ রিপোর্টার


বকেয়া বেতনের দাবীতে মহাখালীর পোশাক শ্রমিকরা উত্তরায়

বৃষ্টিতে রাস্তায় ভিজছে শ্রমিকরা




স্টাফ রিপোর্টার: পলী বেগম (৪০)। ২০১৩ সাল থেকে মহাখালীতে অবস্থিত পারফেক্ট ফ্যাশন লিঃ নামক একটি প্রতিষ্ঠানে সুইং অপারেটর হিসেবে কর্মরত আছেন। দীর্ঘদিন কাজ করার এই মুহুর্তে এসে গার্মেন্টস বন্ধ করে দিয়েছে মালিক কর্তৃপক্ষ। পরিবার-পরিজন নিয়ে সংসার যেমন তেমন কাটলেও এখন কাজ ও বকেয়া বেতন ছাড়া কিছুতেই চলতে পারছেন না তিনি। আর তাই ছুটে এসেছে মহাখালী থেকে উত্তরায়। আজ উত্তরা ১১নং সেক্টরের ৪নং রোডে দাঁড়িয়ে এসব কথা বলেছেন পোশাক শ্রমিক পলী বেগম। স্থানটিতে পলী বেগমের মত অবস্থান নিয়েছে আরও প্রায় ৪০০ জন শ্রমিক। এদের অধিকাংশই নারী।
অন্যান্য এসব নারী পোশাক শ্রমিকরা বলছে, মালিক কর্তৃপক্ষ গার্মেন্ট বন্ধ করে দিয়েছে। বিজিএমইএ কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে গার্মেন্ট মালিকের কাছ থেকে আজ আমরা এখানে আমাদের বকেয়া বেতন নিতে এসেছি।


বৃহঃস্পতি দুপুর ৩:৪০ মিনিটে উত্তরা ১১ নং সেক্টরের ৪নং রোডে অবস্থিত পারফেক্ট ফ্যাশন লিঃ এর কমার্শিয়াল ইউনিটে গিয়ে দেখা যায়, শ্রমিকদের দীর্ঘ সাড়ি। প্রতি ৫জন করে ভেতরে প্রবেশ করানো হচ্ছে এবং নাম ও স্বাক্ষরের মাধ্যমে শ্রমিকদের বেতন প্রদান করা হচ্ছে। ঘটনাস্থলে উপস্থিত রয়েছেন বাংলাদেশ গার্মেন্ট ম্যানুফেকচারস্ এন্ড এক্সপোর্টাস অ্যাসোসিয়েশন (বিজিএমইএ) এর সিনিয়র সহকারি সচিব মিসবাহ উদ দোজা। উত্তরা নিউজকে তিনি জানান, শ্রমিকদের সারিবদ্ধভাবে টাকা প্রদান করা হচ্ছে। ৪০০ শ্রমিকের বেতন প্রদান করা হবে যা একটু সময়ের কাজ।


ঘটনাস্থলে আরও উপস্থিত রয়েছেন জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশন ও শ্রমিক পক্ষের নেতৃবৃন্দগণ।

উল্লেখ্য যে, গত ২২ জুন বিজিএমইএ কর্তৃপক্ষের মধ্যস্থতায় পারফেক্ট ফ্যাশন লিঃ ও শ্রমিকদের মাঝে সমঝোতা চুক্তির ভিত্তিতে আজ ১১ই জুলাই অত্র বেতন প্রদান কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

উত্তরা নিউজ/গাজী তারেক/শিপার মাহমুদ