ফটো সাংবাদিকের ওপর আনসার হামলায় প্রতিবাদ জানিয়েছে ইশা ছাত্র আন্দোলন


» এইচ এম মাহমুদ হাসান | | সর্বশেষ আপডেট: ০৪ জুলাই ২০২০ - ১০:০৫:১৭ পূর্বাহ্ন

করোনা পরীক্ষার নমুনা দিতে লাইনে দাঁড়ানো রোগীকে মারধরের ছবি তুলতে যাওয়ায় মুগদা জেনারেল হাসপাতালে দেশ রূপান্তরের ফটো সাংবাদিক রুবেল রশীদের ওপর হামলা চালিয়েছে সেখানকার আনসার সদস্যরা। তারা ফটো সাংবাদিকের ক্যামেরাও ভেঙে ফেলে। এই ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন।

আজ শুক্রবার বিকেল ৩টায় সংগঠনের কেন্দ্রীয় সভাপতি এম হাছিবুল ইসলাম ও সেক্রেটারি জেনারেল নূরুল করিম আকরাম এক যৌথ বিবৃতিতে বলেন, সাংবাদিকের উপর হামলাকারী আনসার সদস্যদের বরখাস্ত করে শাস্তির আওতায় আনতে হবে। এহেন কাজ কখনোই মেনে নেয়া যায়না। এটা সংবাদপত্রের স্বাধীনতা হরণের নামান্তর।
হামলার শিকার দেশ রূপান্তরের ফটোসাংবাদিক রুবেল রশীদ বলেন, হাসপাতালে কোভিড-১৯ টেস্টের জন্য আজ ৪০ জনকে টিকিট দেওয়া হয়। কিন্তু ৩৪ জনের পরীক্ষা করেই আনসার সদস্যরা বলেন আজ পরীক্ষা শেষ।‌ তখন ৩৬ নম্বর সিরিয়ালে দাঁড়িয়ে থাকা শাওন হোসেন নামের এক যুবকের সঙ্গে আনসার সদস্যদের তর্কাতর্কি হয়। একপর্যায়ে আনসাররা তার গায়ে হাত তোলেন।
শুধু তাই নয় ঘটনার ছবি তুলতে গেলে একাধারে বাংলাদেশ প্রতিদিন দেশ রূপান্তর এর ফটো সাংবাদিকের উপর হামলা চালায় আর আনসার সদস্যরা। এ সময় রুবেল রশিদের ক্যামেরার ফিল্টার ভেঙে দেয়। এখানেই থেমে থাকেনি ওরা সাংবাদিকদের কে বেঁধে রাখার হুমকি দেয়। একটি হাসপাতালে কর্মরত আনসার সদস্যরা এত বড় ধৃষ্টতা দেখানোর সাহস কোথায় পেল সচেতন নাগরিক তা জানতে চায়।
দোষী আনসার সদস্যদের দ্রুততম সময়ের মধ্যে বিচারের আওতায় না আনা হলে উদ্ভূত পরিস্থিতির জন্য প্রশাসন দায়ী থাকবে।
নেতৃদ্বয় বলেন, আমরা চাই এই ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত পূর্বক বিচার হোক। এবং এই বিচার সংবাদপত্রের স্বাধীনতা নিশ্চিতকরণের জন্য দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে বলে আমরা আশা করছি।