পশ্চিমবঙ্গে আম্ফানে ১২ জনের মৃত্যু


» কামরুল হাসান রনি | ডেস্ক ইনচার্জ | | সর্বশেষ আপডেট: ২১ মে ২০২০ - ১২:২০:৫৬ অপরাহ্ন

সুপার সাইক্লোন আম্ফানে বুধবার (২০ মে) রাত পর্যন্ত ১২ জনের মৃত্যু হয়েছে পশ্চিমবঙ্গে। তার মধ্যে তিনজন কলকাতার। খবর টাইমস অব ইন্ডিয়া ও আনন্দবাজারের।

হাওড়াতে টিনের চাল উড়ে এসে লক্ষ্মী কুমারী সাউ (১৩) নামে এক কিশোরীর মৃত্যু হয়েছে। বসিরহাট মহকুমায় দুজনের মৃত্যু হয়েছে। তার মধ্যে দক্ষিণ বারগা গ্রামে নূরজাহান বেগম নামে এক মহিলা গাছ চাপা পড়ে মারা গেছেন। আর মাটিয়া থানার মমিনপুর গ্রামে ঘর চাপা পড়ে মৃত্যু হয়েছে মহন্ত দাস (২২) নামক এক যুবকের।

কলকাতায় এখনও পর্যন্ত ৩ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। তালতলা থানা এলাকায় এক ব্যক্তি বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মারা গিয়েছেন। অন্যদিকে রিজেন্ট পার্ক থানা এলাকায় গাছ পড়ে মৃত্যু হয়েছে মা ও ছেলের। মেদিনীপুরের ভূপতিনগরে বাড়ি ভেঙে এক মহিলার মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে।

বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টা নাগাদ ঘূর্ণিঝড় আম্ফান আছড়ে পড়ে পশ্চিমবঙ্গের উপকূলবর্তী এলাকায়। সে সময় বাতাসের গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় প্রায় ১৫৫-১৬৫ কিলোমিটার। সর্বোচ্চ গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ১৮৫ কিলোমিটার। রাতে কলকাতায় আম্ফানের গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় প্রায় ১৩৩ কিলোমিটার। আম্ফানের তাণ্ডবে কলকাতাসহ দুই ২৪ পরগনা, পূর্ব মেদিনীপুর লণ্ডভণ্ড হয়ে গেছে। হাওড়া, হুগলি এবং পশ্চিম মেদিনীপুরের অবস্থাও ভয়াবহ।

আম্ফানের প্রভাব থাকবে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত। শেষ পর্যন্ত সুপার সাইক্লোনের ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ কোথায় গিয়ে দাঁড়ায় দেখার বিষয়।