পরিবেশ সুন্দর রাখতে গাছ থেকে নামানো হলো ব্যানার-ফেস্টুন, তোলা হলো পেরেক


» কামরুল হাসান রনি | ডেস্ক ইনচার্জ | | সর্বশেষ আপডেট: ২৮ অক্টোবর ২০১৯ - ০১:৪২:৩৫ অপরাহ্ন

চাটমোহর উপজেলার মথুরাপুরের কয়েকজন সচেতন তরুণের উদ্যোগে বাইপাস মোড় থেকে তেনাচিরা বটগাছ পর্যন্ত প্রায় অর্ধশতাধিক গাছ থেকে ৮২টি ব্যানার, ফেস্টুন ও গাছে লাগানো লোহা সরিয়ে ফেলেছে। শনিবার দুপুরে কয়েক তরুণ মিলে গাছ থেকে ব্যানার, ফেস্টুন ও লোহা সরিয়ে ফেলার এ উদ্যোগ শুরু করেন।

কয়েক মাস আগে চাটমোহর উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে অনুভূতিশীল গাছ রক্ষায় পৌর সদরের কয়েকটি গাছ রক্ষা করে, কোন ব্যানার-ফেস্টুন না ঝোলানোর জন্য ১০টি পয়েন্টে বিজ্ঞপ্তি রাখা হয়। এতে পৌর সদরের কয়েকটি গাছ রক্ষা পেলেও পৌর সদরের বাইরে সড়কের পাশের গাছগুলোতে লাগানো আছে লোহা বা পেরেক দিয়ে লাগানো হাজারো ফেস্টুন। উপজেলার মিশনগেটে সেন্ট রিটাস হাই স্কুলের সামনে কয়েক শ মিটার রাস্তাতেই গাছে লাগানো ছিল অর্ধশতাধিক ফেস্টুন।

সেন্ট রিটাস হাই স্কুলের সাবেক শিক্ষার্থী শেখ জাবের আল শিহাব সমাজ সচেতনতার অংশ হিসাবে নিজ বিদ্যালয়ের সামনের এই সড়কের গাছগুলো মুক্ত করার উদ্যোগ নেন। চাটমোহর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সরকার অসীম কুমারের অনুমতিক্রমে এই উদ্যোগ বাস্তবায়ন করে স্থানীয় তরুণেরা। যে উদ্যোগ বাস্তবায়নে সার্বিক সহায়তা করেন মথুরাপুর ইউপি চেয়ারম্যান সরদার মো. আজিজুল হক এবং তেনাচিরা এলাকার ব্যবসায়ী আব্দুল মজিদ। কয়েক ঘণ্টাব্যাপী এ উদ্যোগে প্রায় অর্ধশতাধিক গাছ থেকে ৮২টি ব্যানার-ফেস্টুন এবং লোহা তুলে ফেলা হয়।

উদ্যোক্তা শেখ জাবের আল শিহাব বলেন, চেতনায় চাটমোহরে লেখালেখির প্রেক্ষিতে চাটমোহর উপজেলা প্রশাসন অনুভূতিশীল গাছ রক্ষার যে উদ্যোগ নিয়েছে সেটা সত্যিই প্রশংসার দাবি রাখে। আর আমরা চাইলে যে যার এলাকায় এটা বাস্তবায়ন করে চাটমোহরকে বৃক্ষবান্ধব নগরী হিসাবে তুলে ধরতে পারি। এলাকার তরুণদের এমন উদ্যোগে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন মথুরাপুর মিশনগেটের এলাকার মানুষ।