উত্তরা নিউজ উত্তরা নিউজ
অনলাইন রিপোর্ট


নদী দখলবাজদের বিরুদ্ধে আতিকের কর্মসূচি ঘোষণা






এস,এম,মনির হোসেন জীবন: আগামী রোববার থেকে অবৈধ নদী দখলদারদের বিরুদ্ধে উচেছদ অভিযান শুরু হবে বলে জানিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলাম ।
তিনি বলেন, আমি চাই বর্ষার আগে যত দ্রুত সম্ভব খালগুলো উদ্ধার করে নগরবাসীকে জলাবদ্ধতা থেকে মুক্তি দেবো। আজকে যেসব জায়গায় বলে এসেছি তারা দখল সরিয়ে না নিলে আগামী রোববার থেকে উচ্ছেদ অভিযান শুরু হবে। অবৈধ দখলদারকে কোন ধরনের ছাড় দেওয়া হবে না।
তিনি আজ মঙ্গলবার সকালে রাজধানীর উত্তরা ও উত্তর বাড্ডা-সংলগ্ন সুতি খাল পরিদর্শনে এসে সাংবাদিকদের সাথে এক প্রেসব্রিফিংয়ে এসব কথা বলেন।
মেয়র আতিকুল ইসলাম বলেন, ১৭ মার্চ থেকে শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম পরিচালনা করা হবে। যাতে সবাই সচেতন হয়ে নিজের আশপাশ পরিচ্ছন্ন রাখে। সবাই সচেতন হলে একটি পরিচ্ছন্ন সুন্দর নগরী গড়ে তোলা সম্ভব হবে।
তিনি বলেন, আমি নগরবাসীর সেবায় সব প্রোটোকল ভেঙে সর্বাত্মক কাজ করতে চাই। ওয়াসার এমডিকে আমি নিজে কল করে জলবদ্ধতা নিরসনে একযোগে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছি।
মেয়র বলেন, আমরা সবাই মিলে চেষ্টা করছি জলবদ্ধতা থেকে কিছুটা হলেও নগরবাসীকে মুক্তি দিতে। যদিও বর্ষা মৌসুম প্রায় চলে এসেছে, এ অল্প সময়ের মধ্যে শর্ট টার্মে কী কী করা যায় তা নিয়ে আমরা আলোচনার মাধ্যমে কাজ করছি।
তিনি বলেন, খাল পরিদর্শনে এসে দেখতে পেলাম পানিপ্রবাহের জায়গায় ময়লা-আবর্জনা, প্লাস্টিকসহ বিভিন্ন জিনিসের স্তুপ জমে হয়ে আছে। এগুলো পানির প্রবাহকে নষ্ট করছে। বর্ষার আগেই আমরা এগুলো পরিষ্কার করার পাশাপাশি খনন করে গভীরতা সৃষ্টি করব; যেন পানিপ্রবাহ ঠিক থাকে।
মেয়র আতিকুল ইসলাম হুশিয়ারী দিয়ে বলেন, এছাড়া যেসব দোকান আছে সেগুলোতে একটি মিনি বিন (ময়লার পাত্র) রাখা বাধ্যতামূলক করা হবে। যাতে কেউ এসব ময়লা খালে, ড্রেন না ফেলে। তাতে কাজ না হলে সিটি করপোরেশনের পক্ষ থেকে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আমি কোনো অযুহাত শুনবো না। প্রয়োজনে আমি খালে নেমে খাল খনন করবো। যেখানে আটকে যাবেন, পারবেন না; আমাকে বলবেন।
খাল পুনরুদ্ধারে গণমাধ্যমের সাহায্য চেয়ে ডিএনসিসি মেয়র আতিকুল ইসলাম বলেন, আমরা কাজ করছি, করবো। আপনারা সবসময় আমাদের সঙ্গে ছিলেন। আপনারা আগামীতেও আমাদের সঙ্গে থাকেন।
তিনি বলেন, ভালো কিছু করতে হলে জনমত গঠন করতে হবে। জনমতের সামনে কোনো কিছু টিকবে না। আর জনমত গঠনে গণমাধ্যমের বিকল্প কিছু নেই।
আজ মঙ্গলবার সকালে রাজধানীর উত্তরার শায়েস্তা খান এভিনিউ, আশকোনা সড়ক, বনানীর মেট্রোরেল প্রকল্প এবং বাড্ডার সুতি খাল পরিদর্শনে যান মেয়র আতিকুল ইসলাম।
মেয়র খাল জবরদখলকারীদের উদ্দেশ্যে হুশিয়ারী দিয়ে বলেন, খাল দখলের কারণে মানুষের কি দূর্বিষহ ভোগান্তি হচ্ছে আমি তার দেখেছি। খালসহ যতোধরনের জলাধার-জলাশয় আমাদের আছে সেগুলো দখল বা ভরাটের জন্য যারাই দায়ী, তারা যেন দখল ছেড়ে দেন। যদি তাতে কাজ না হয় তাহলে আমার কর্মকর্তাদের কঠোর পদক্ষেপ নেওয়ার নির্দেশ এখানে বসেই দিয়েছি। আমি নিজে তদারকি করবো। দখল হওয়া খাল পুনরুদ্ধার করে ছাড়বো। আমি টাইমলাইনে বিশ্বাসী’।
পরিদর্শনকালে ডিএনসিসি প্রধান প্রকৌশলী ও ওয়াসা,রেলওয়ে সহ সংশ্লিষ্ট বিভাগের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।