তৈলবীজ চাষের উৎপাদন বৃদ্ধিতে সহায়তা করবে সরকার -কৃষিমন্ত্রী


» কামরুল হাসান রনি | ডেস্ক ইনচার্জ | | সর্বশেষ আপডেট: ১৩ জানুয়ারি ২০২০ - ০৮:৪২:১২ অপরাহ্ন

দেশে তেলের আমদানি নির্ভরতা কমাতে দেশব্যাপী উন্নত ও অধিক ফলনশীল সরিষার আবাদ বৃদ্ধি করা হচ্ছে। সরিষা বাংলাদেশের প্রধান ভোজ্যতেল ফসল। সরিষা হতে যে খৈল হয় তাতে প্রায় ৪০ শতাংশ আমিষ থাকে। এই খৈল গরু ও মহিষের জন্য খুব পুষ্টিকর খাদ্য। তাই দেশের মাটি ও আবহাওয়া উপযোগী নতুন নতুন তৈলবীজের জাত উদ্ভাবন করে ব্যাপক হারে আবাদ করতে হবে। দেশে তৈলবীজ চাষের এলাকা ও উৎপাদন বৃদ্ধিতে সব ধরনের উপকরণ প্রদানে সহায়তা করবে সরকার।

কৃষিমন্ত্রী ড. মোঃ আব্দুর রাজ্জাক আজ জেলার সরিষাবাড়ী উপজেলায় সতপোয়ার সরিষাবাড়ী গ্রামে উচ্চ ফলনশীল বারি সরিষা-১৪ এর আবাদ বাস্তবায়নে বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউট আয়োজিত ‘মাঠ দিবস’ অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন। এর আগে মন্ত্রী সরিষার মাঠ পরিদর্শন করেন।

মন্ত্রী জানান, সরিষাবাড়ীতে মোট ৪ লাখ ৭৭ হাজার হেক্টর জমিতে এই বারি সরিষা-১৪ চাষ করা হয়েছে। উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা ৬ লাখ ৫০ হাজার মেট্রিক টন যা হতে ২ লাখ ৫০ হাজার মেট্রিক টন তৈল উৎপন্ন হবে।

কৃষি সচিব মোঃ নাসিরুজ্জামাননের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডাঃ মুরাদ হাসান, সংসদ সদস্য ইঞ্জিঃ মোজাফ্ফর আহমেদ, এপিএ পুলের সদস্য মোঃ আব্দুল হামিদ, বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক ড. মোঃ শাহজাহান কবীর ও কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ড. মোঃ আব্দুল মুঈদ। বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক ড. আবুল কালাম আযাদ অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন।