জরুরি খাদ্যের স্টিকারযুক্ত পিকআপ ও অস্ত্র-ইয়াবা জব্দ


» কামরুল হাসান রনি | ডেস্ক ইনচার্জ | | সর্বশেষ আপডেট: ২৩ মে ২০২০ - ০১:২৯:৪৫ অপরাহ্ন

রাজধানীর আদাবরে অভিযান পরিচালনা করে কক্সবাজার থেকে আসা পিকআপভ্যান থেকে দুটি পিস্তল, ৬ রাউন্ড গুলি এবং ৭ হাজার পিস ইয়াবা জব্দ করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) ।

বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে রাজধানীর আদাবর থানার রিং রোড হক সাহেবের গ্যারেজের সামনে ওই অভিযানে অস্ত্র-মাদকসহ পিকআপ ভ্যানটি জব্দ করা হয়। এসময় চার মাদক বব্যসায়ীকে আটক করা হয়।

আটককৃতরা হলেন, গাজীপুরের মো. ওসমান (৩৭), শাহজাহান সরকার (৩৬), সেলিম সরকার (৪৫) ও ময়মনসিংহের বাসিন্দা নুর ইসলাম (৩৫) ।

র‌্যাব-২ জানিয়েছে, ডাব ও কাঁঠালভর্তি ওই পিকআপ ভ্যান সাদা কাগজে “জরুরী প্রাণী খাদ্য উৎপাদন কাজে নিয়োজিত” স্টিকার সাঁটিয়ে অবৈধ অস্ত্র ও ইয়াবার চালান গ্রহণ ও বহন করে ঢাকা ও গাজীপুরে সরবরাহ করে আসছিল চক্রটি।

শুক্রবার দুপুরে র‌্যাব-২ এর কোম্পানি কমান্ডার পুলিশ সুপার মহিউদ্দিন ফারুকী বলেন, বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আদাবরে চেকপোস্ট বসিয়ে অভিযান পরিচালনা করে পিকআপ ভ্যান, অস্ত্র, ইয়াবাসহ চারজনকে আটক করা হয়।

তিনি বলেন, তারা তাদের গডফাদারদের অর্থ ও পরিবহণ সহযোগিতা নিয়ে দীর্ঘদিন যাবৎ কক্সবাজার এলাকা হতে জব্দকৃত পিকআপটিতে সাদা কাগজে “জরুরী প্রাণী খাদ্য উৎপাদন কাজে নিয়োজিত” স্টিকার সাঁটিয়ে অবৈধ অস্ত্র ও ইয়াবার চালান গ্রহণ ও বহন করে ঢাকা ও গাজীপুরে সরবরাহ করছিল।

মাদক ব্যবসা নির্বিঘ্ন করার লক্ষ্যে মাদক ব্যবসায়ীদের চাহিদামত কক্সবাজার হতে অস্ত্রের চালান গ্রহণ করে মাদক ব্যবসায়ীদের নিকট চড়া দামে বিক্রয় করে থাকে। কক্সবাজার থেকে রওনা করার সময় তাদের সামনে প্রাইভেটকারযোগে একটি এসকর্ট পার্টি থাকে। রাস্তায় চেকপোস্ট থাকলে বা গাড়ী তল্লাশি হলে এসকর্ট পার্টি সামনে থেকে সতর্ক করে দেয়।

লাইসেন্সবিহীন স্বয়ংক্রিয় আগ্নেয়াস্ত্র, গুলি ও মাদক নিজ নিজ হেফাজতে রাখায় তাদের বিরুদ্ধে রাজধানীর আদাবর থানায় অস্ত্র আইন ও মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে পৃথক দুটি মামলা দায়ের করা হয়েছে বলে জানান তিনি।