করোনায় আক্রান্ত হলেন ট্রুডোর স্ত্রী সোফি


» Md. Neamul Hasan Neaz | | সর্বশেষ আপডেট: ১৩ মার্চ ২০২০ - ০৪:১৯:০২ অপরাহ্ন

চীনের উহান থেকে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া নতুন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হতে পারেন এমন শঙ্কায় স্বেচ্ছায় আইসোলেশনে গিয়েছিলেন কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো ও তার স্ত্রী সোফি গ্রেগরি ট্রুডো। কিন্তু আইসোলেশনে যাওয়ার পরপরই ট্রুডোর স্ত্রী সোফির শরীরে করোনা শনাক্ত করা হয়েছে।

মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএ-এর প্রতিবেদন অনুযায়ী, প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোর শরীরের এখনো করনোভাইরাসের সংক্রমণ ঘটেনি। এছাড়া স্ত্রী সোভি করোনায় আক্রান্ত হলেও তার অবস্থা স্থিতিশীল। শারীরিক অবস্থা অতটা গুরুতর নয়। তারা দুজনই এখন ১৪ দিনের আইসোলেশনে রয়েছেন।

বিবিসির খবরে বলা হয়, বুধবার যুক্তরাজ্য সফর শেষে দেশে ফিরে সোফি গ্রেগরি অসুস্থতাবোধ করেন। পরে তার করোনার পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়। সেই পরীক্ষার প্রতিবেদন হাতে পাওয়ার পর জানা যায় সোফি গ্রেগরি কোভিড-১৯ পজিটিভ। প্রতিবেদন পাওয়ার আগেই স্বেচ্ছা আইসোলেশনে যান তারা।

স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার শেষরাতে কানাডার প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে বিবৃতি দিয়ে এ খবর জানানো হয়। দুদিন পর অটোয়ায় প্রাদেশিক নেতাদের সঙ্গে ট্রুডোর যে বৈঠক হওয়ার কথা ছিল তা আপাতত স্থগিত। এছাড়া অন্যান্য নেতাদের যেসব ব্রিফিং, মিটিং আর আলোচনায় ভার্চুয়ালভাবে অংশ নেবেন তিনি।

ট্রুডোর কার্যালয়ের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘প্রধানমন্ত্রীর শরীরে করোনাভাইরাসে কোনো উপসর্গ দেখা যায়নি। আগাম সতর্কতামূলক ব্যবস্থা ও চিকিৎসকদের পরামর্শ অনুযায়ী তিনি ১৪ দিনের আইসোলেশনে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন।’ কানাডায় একজনের মৃত্যু ছাড়াও ১৪৭ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।