করোনার পাশাপাশি কার্ডিয়াক মার্কার পরীক্ষার পরামর্শ ড. বিজনের


» এইচ এম মাহমুদ হাসান | | সর্বশেষ আপডেট: ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ - ০১:২৬:৪৯ অপরাহ্ন

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত অনেক রোগী হৃদরোগে আক্রান্ত হচ্ছেন। তাই করোনার পাশাপাশি হৃদরোগে আক্রান্ত কি-না, সেই পরীক্ষা করাতে হবে। পরীক্ষার পর হৃদরোগ ধরা পড়লে যথাযথ চিকিৎসার মাধ্যমে অনেক করোনা রোগীকে বাঁচানো যাবে।

বৃহস্পতিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) এসব কথা জানান আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন অণুজীববিজ্ঞানী এবং গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের এন্টিবডি ও এন্টিজেন কিট আবিষ্কারক দলের প্রধান বিজ্ঞানী ড. বিজন কুমার শীল।

তিনি বলেন, ‘সারাবিশ্বে অনেক করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী হৃদরোগে আক্রান্ত হচ্ছেন। তাই করোনা টেস্টের সাথে সাথে কার্ডিয়াক মার্কার টেস্ট করা যেতে পারে। এটা করলে বোঝা যাবে, করোনা হার্টকে আক্রান্ত করছে কি-না। তাহলে চিকিৎসকরা প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে পারবেন। এতে অনেকে বেঁচে যাবেন।’

সিঙ্গাপুর থেকে ওয়ার্ক পারমিট নিয়ে বাংলাদেশে এসেছিলেন ড. বিজন। গত জুলাইয়ে তার ভিসার মেয়াদ শেষ হয়। তারপর ওয়ার্ক ভিসার জন্য আবেদন করলেও সরকারের পক্ষ থেকে কোনো উত্তর দেয়া হয়নি। ফলে কাজ করতে না পেরে এক ধরনের বাধ্য হয়ে গত ২০ সেপ্টেম্বর দেশ ছেড়েনে ড. বিজন। ওয়ার্ক ভিসার অনুমতি পেলে তিনি আবার বাংলাদেশে কাজে ফিরতে পারবেন।

গণবিশ্ববিদ্যালয়ের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের প্রধান হিসেবে শিক্ষকতা করছিলেন ড. বিজন কুমার শীল। এর মধ্যে করোনা সংক্রমণ শুরু হলে পূর্ব অভিজ্ঞতার ভিত্তিতে তিনি তা শনাক্তে অ্যান্টিজেন্ট ও অ্যান্টিবডি কিটের উদ্ভাবন করেন। তবে তা এখনো অনুমোদন দেয়নি সরকার।