উত্তরা নিউজ উত্তরা নিউজ
অনলাইন রিপোর্ট


ঈদে ট্রেনের ছাদে উঠতে দেয়া হবে না






প্রতিবছর ঈদের সময় অতিরিক্ত যাত্রীর চাপে অনেকেই ট্রেনের ছাদে উঠে ঝুঁকি নিয়ে যাত্রা করেন। এবার ট্রেনের ছাদে কাউকে উঠতে দেয়া হবে না। যাত্রীদের জন্য অতিরিক্ত ট্রেন এবং স্ট্যান্ডিং টিকিটের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেয়া হয়েছে সংশ্লিষ্টদেরও।

কমলাপুর রেল স্টেশনের ম্যানেজার আমিনুল হক রাইজিংবিডিকে বলেন, যাত্রীদের সুবিধার্থে আন্তঃনগরসহ চারটি স্পেশাল ট্রেনে দেয়া হবে স্ট্যান্ডিং টিকিট। তবে কোনো যাত্রীকেই এবার ট্রেনের ছাদে উঠতে দেয়া হবে না। আমরা চেষ্টা করব, সিডিউল অনুযায়ী যেন সব ট্রেন চলাচল করতে পারে।

আমিনুল হক জানান, আসনস্বল্পতার কারণে যেসব যাত্রী ট্রেনের অগ্রিম টিকিট কাটতে পারেননি, তাদের সুবিধার্থে ঈদযাত্রা শুরুর দিন থেকে প্রতিটি ট্রেন ছাড়ার দুই ঘণ্টা আগে ৩০ শতাংশ স্ট্যান্ডিং টিকিট বিক্রি করা হবে।

এদিকে, ঈদুল আজহা উদযাপন শেষে যারা কর্মক্ষেত্রে ফিরতে চান তাদের জন্য ট্রেনের ফিরতি টিকিট বিক্রি শুরু হবে ৫ আগস্ট। সেদিন দেয়া হবে ঈদ পরবর্তী ১৪ আগস্টের টিকিট। ফিরতি টিকিট বিক্রি হবে ৯ আগস্ট পর্যন্ত।

৬ আগস্ট পাওয়া যাবে ১৫ আগস্টের টিকিট। ৭ আগস্ট ১৬ আগস্টের, ৮ আগস্ট ১৭ আগস্টের এবং ৯ আগস্ট ১৮ আগস্টের অগ্রিম ফিরতি টিকিট দেয়া হবে।

ফিরতি টিকিট অনলাইনে অর্ধেক এবং বাকি অর্ধেক সংশ্লিষ্ট রেল স্টেশনগুলোতে পাওয়া যাবে বলে জানা গেছে।

প্রসঙ্গত, আসন্ন ঈদুল আজহা উপলক্ষে রেলের অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু হয় ২৯ জুলাই। ২ আগস্ট বিক্রি হয় ১১ আগস্টের টিকিট।

উত্তরা নিউজ/এস,এম,জেড